সেন্ট অগাস্টিন ছিলেন উত্তর আফ্রিকার প্রকৃতিবাদী ধর্মতত্ত্ববিদ ও খ্রিস্টীয় দার্শনিক

হিপ্পোর অগাস্টিন বা সেন্ট অগাস্টিন বা আউরেলিয়ুস আউগুস্তিনুস (লাতিন: Aurelius Augustinus Hipponensis; ১৩ নভেম্বর ৩৫৪ – ২৮ আগস্ট ৪৩০) ছিলেন একজন ধর্মতত্ত্ববিদ, দার্শনিক এবং রোমান উত্তর আফ্রিকার খ্রিস্টীয় ধর্মাধ্যক্ষ। তাঁর লেখাগুলি পশ্চিমা দর্শন এবং পাশ্চাত্য খ্রিস্টধর্মের বিকাশের উপর প্রভাব ফেলেছিল এবং প্যাট্রিস্টিক সময়কালে তাঁকে লাতিন চার্চের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ চার্চ ফাদার হিসাবে দেখা হয়। তাঁর অনেক গুরুত্বপূর্ণ কাজের মধ্যে রয়েছে দ্য সিটি অফ গড, অন ক্রিশ্চান ডকট্রিন এবং কনফেসনস। তাঁর সমসাময়িক জেরোমের মতানুসারে অগাস্টিন “প্রাচীন বিশ্বাসকে নতুনভাবে প্রতিষ্ঠিত করেছিলেন”। [১]

সেন্ট অগাস্টিন-এর জন্ম উত্তর আফ্রিকার হিপোতে। যৌবনকালে অগাস্টিন ছিলেন ধর্মীয় বিশ্বাসে প্যাগান বা প্রকৃতিবাদী। কিন্তু কিশোর বয়স থেকেই তাঁর মধ্যে সত্যানুসন্ধানের প্রবল আগ্রহ প্রকাশ পেতে থাকে। অগাস্টিনের রচনার আগ্রহ এবং ক্ষমতাও ছিল অসাধারণ। তাঁর সমকালীন জীবনের ধর্মীয়, সামাজিক, রাষ্ট্রীয় এবং ব্যক্তির জীবনের নীতিগত সমস্ত সমস্যাই তাঁর রচনাসমূহে আলোচিত হয়েছে। এই রচনার মধ্যে তাঁর ‘কনফেশন’ বা ‘স্বীকারোক্তি’ এবং ‘সিটি ব গাড’ বা ‘ঈশ্বরের রাজ্য’ প্রসিদ্ধ। তাঁর স্বীকারোক্তির মধ্যে তাঁর যৌবনকালের আচরণ এবং বিচিত্র ধর্মীয় অভিজ্ঞতার বর্ণনা আছে।

অগাস্টিন বিভিন্ন ধর্মীয় বিশ্বাস অনুসরণ এবং বিচার শেষে ৩৩ বৎসর বয়সে খ্রিস্ট ধর্ম গ্রহণ করেন। ৩৯১ খ্রিষ্টাব্দে তাঁকে হিপোর ধর্মযাজক রূপে ঘোষণা করা হয়। খ্রিষ্টধর্ম গ্রহণ করার পর তিনি খ্রিস্ট ধর্মের একজন শক্তিশালী প্রচারক এবং রহস্যবাদী দার্শনিকরূপে জীবনযাপন করেন। দর্শনের ক্ষেত্রে অগাস্টিনের মূল কথা ছিল: বিশ্বাস ব্যতীত জ্ঞান সম্ভব নয়।

সেন্ট অগাস্টিনের ‘ঈশ্বরের রাজ্য’ বা ‘সিটি অব গড’ খন্ডাকারে তের বছর ধরে রচিত হয়। সর্বপ্রকার সমস্যাই তিনি তাঁর এই গ্রন্থে আলোচনা করেন। ‘ঈশ্বরের রাজ্য’ এবং ‘পাপের রাজ্য’কে অগাস্টিন পুণ্য এবং পাপ; সৎ এবং অসৎ-এর দ্বন্দ্বমান জগৎরূপে কল্পনা করেন। বিশ্ব সম্পর্কে খ্রিষ্টধর্মের বিশ্বাস অগাস্টিনের ইতিহাস ব্যাখ্যার ভিত্তি হিসাবে কাজ করেছে। ইতিহাসের এ ব্যাখ্যাকে অদৃষ্টবাদ বলা হয়। বিশ্বে যা কিছূ ঘটেছে, ঘটছে বা ঘটবে তা সবই ঈশ্বর কর্তৃক পূর্ব নির্ধারিত।[২]

আরো পড়ুন:  জন স্টুয়ার্ট মিল উনিশ শতকের ইংল্যান্ডের দার্শনিক, যুক্তিবিদ এবং অর্থনীতিবিদ

তথ্যসূত্র

১. অনুপ সাদি, ৩০ এপ্রিল ২০১৯, “সেন্ট অগাস্টিন প্রসঙ্গে”, রোদ্দুরে ডট কম, ঢাকা, ইউআরএল: https://www.roddure.com/biography/saint-augustine/
২. সরদার ফজলুল করিম; দর্শনকোষ; প্যাপিরাস, ঢাকা; ৫ম মুদ্রণ জানুয়ারি, ২০১২; পৃষ্ঠা ৭১।

Leave a Comment

error: Content is protected !!